April 24, 2024 11:36 am

পাপনের চোখে সিলেট টেস্টে বাংলাদেশের খেলার ধরন ‘জঘন্য, বিচ্ছিরি’ কেন?

Advertisement
Advertisement

পাপনের চোখে সিলেট টেস্টে বাংলাদেশের খেলার ধরন ‘জঘন্য, বিচ্ছিরি’ কেন?এবার শ্রীলঙ্কার বি’পক্ষে টেস্ট সিরিজে বাংলাদেশকে নিয়ে খুব ভা’লো কিছুর প্র’ত্যাশা ছিল না বিসিবি স’ভাপতি নাজমুল হাসানের। কিন্তু দল এতটা বা’জে খেলবে, তা সে ভাবতেও পারেননি। সিলেট টেস্টে বাংলাদেশের খে’লার ধরন, ব্যা’টসম্যানদের শট নির্বাচন এবং মানসিকতা নিয়ে ক্রিকেটারদের স্রেফ ধুয়ে দিলেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের নিয়ন্তা সংস্থার প্রধান। আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ এই সিরিজের প্রথম টেস্টে ৩৩৮ রানে হেরেছে বাংলাদেশ।

দুই ই’নিংসের কোনোটিতে দল পা’রেনি ২০০ ছুঁতে। গোটা ম্যাচে ফি’ফটি স্পর্শ করতে পারেন কেবল একজন ব্যাটসম্যান, ফি’ফটি জুটি ছিল মো’টে একটি। শেষ ই’নিংসে বিশাল লক্ষ্য তাড়ায় একের পর এক ব্যা’টসম্যান উইকেট ছুড়ে এ’সেছেন বাজে শটে। ল’ড়াইয়ের তাড়না খুব একটা দেখা যা’য়নি তাদের পা’রফরম্যান্সে। অ’ভিজ্ঞতার দিক থেকে অবশ্য শ্রীলঙ্কার চেয়ে কিছুটা পিছিয়েই ছিল বাংলাদেশ। চোটের কারণে সিরিজ থেকে ছিটকে গেছেন মুশফিকুর রহিম, বিশ্রামে ছিলেন সাকিব আল হাসান।

তামিম ইকবালের আন্ত’র্জাতিক ক্যা’রিয়ারের তো শেষ ব’লেই ধরে নেওয়া যায়। দেশের মাঠে সা’ধারণত যে ধরনের উ’ইকেটে খেলে থাকে বাংলাদেশ, এবার সি’লেটের পিচও সেদিক থেকে ছিল ব্য’তিক্রম। উ’ইকেটে ছিল ঘাসের ছোঁয়া, পে’সারদের জন্য ছিল সহায়তা। নিজেরা এই ধরনের উইকেট বেছে নি’লেও তাতে মানিয়ে নিতে পা’রেনি না’জমুল হোসেন শান্তর দল। এই ব্যা”’পারগুলি তুলে ধরলেন না’জমুল হাসানও।

বিসিবিতে মঙ্গলবার সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে বিসিবি সভাপতি বললেন, দলের পরাজয় নিয়ে তার দুর্ভাবনার জায়গা খুব একটা নেই। “সবার কাছে যেমন লেগেছে, আমার কাছেও তেমনই। ভালো লাগার কোনো কারণ নেই অবশ্যই। হারা-জেতা নিয়ে আমার অতটা ভাবনা নেই। অন্যান্য দেশেও যখন তাদের অভিজ্ঞ ক্রিকেটাররা চলে যায়, নতুন একটা দল আসে, তারা চার-পাঁচ বছর ভুগতে থাকে।

আবারো ফিলিস্তিনের কাছে ১-০ গোলে হেরে গেলো বাংলাদেশ!

সেদিক থেকে বলব আমাদের দলের অবস্থা অতটা খারাপ হয় নাই, যতটা খারাপ অন্য দেশের হয়েছে। সেদিক দিয়ে মোটামুটি ভালো আছে।” “দ্বিতীয়ত, উইকেট। পুরো অন্য ধরনের উইকেটে আমরা এখন খেলার চেষ্টা করছি। যারা খেলছে, তাদের জন্য নতুন অভিজ্ঞতা। পরের ধাপে যাওয়ার জন্য যা যা করা দরকার, আমরা করছি। কাজেই হারা-জেতাটা গুরুত্বপূর্ণ নয়। কী হয়েছে, সেটা নিয়ে আমি একেবারেই চিন্তিত নই।

এটা যে একেবারেই অপ্রত্যাশিত ছিল, তাও নয়। টেস্টে শ্রী’লঙ্কার সঙ্গে জিতবই, ওরকম আত্মবিশ্বাস ছিল, এটা বলা ঠিক হবে না। আস’লেই ছিল না।” বিসিবি সভাপতির আপত্তি দলের খেলার ধরন নিয়ে। এভাবে অ”সহায় আ”ত্মসমপর্ণ, কোনো তা’ড়না না দেখানো, উ”ইকেট বি’লিয়ে আসা, এসব মা’নতেই পারছেন না তিনি। “সমস্যা এ”’খানে হারা নিয়ে নয়। সমস্যা হচ্ছে, যে”ভাবে তারা হেরেছে। যেভাবে তারা খেলেছে, তাদের যে মাইন্ডসেট, অ্যাটিটিউড, শট নির্বাচন, এটা জঘন্য, বিচ্ছিরি ছিল দেখতে।

মনে হয়েছে, হয় তারা এই সংস্করণ খেলতে চায় না, অথবা অন্য কোনো সমস্যা। এটা নিয়ে আমরা কষ্ট পেয়েছি।” “এই ধরনের শট নির্বাচন, এই ধরনের মাইন্ডসেট, এটা টেস্টে যায় না। এরা কেউ বাচ্চা ছেলে নয় যে হঠাৎ করে আজকে মাঠে নেমেছে এবং এসব বলে দিতে হবে। তারা প্রত্যেকে জানে। এসব নিয়েই আমাদের মন খারাপ হয়েছে।সূত্র-বিডিনিউজ২৪।

Advertisement
x